চুল পড়া আটকাবে পেয়ারা পাতা

অকালে বা অসময়ে চুল পড়ে যাওয়া এখন অধিকাংশেরই সমস্যা। কেউ কেউ তো চুল ওঠার ভয়ে মাথায় চিরুনি দিতেও অস্বস্তি বোধ করেন। চুল পড়া রোধে দেশী বিদেশী নানান প্রতিষ্ঠানের নানান ধরনের সামগ্রীর বিজ্ঞাপনে বাজার ছেয়ে থাকে, কিন্তু আমাদের চারপাশেই রয়েছে এমন অনেক জিনিস, যা আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা তো বাড়ায়ই, পাশাপাশি চুল ও ত্বকের সৌন্দর্য ও স্বাস্থ্য রক্ষা করে।

  পেয়ারার মধ্যে ভিটামিন ‘সি’ থাকার কথা কমবেশি সকলেই জানেন। পেয়ারা পাতার দাঁতের ব্যথা উপশমের ক্ষমতার কথাও অনেকের জানা। কিন্তু এই পেয়ারা পাতাতেই আপনার চুল পড়া বন্ধ হতে পারে তা জানেন কি? বোধহয় না। সঠিক পদ্ধতি জানলেই পাবেন উপকার। তাও বিনা খরচে। জেনে নেওয়া যাক এর সঠিক পদ্ধতি।

প্রথমে বেশ কিছু পেয়ারা পাতা নিন। তা ফুটন্ত গরম জলে দিয়ে কিছুক্ষণ সিদ্ধ করুন।

প্রায় ২০ মিনিট ধরে সিদ্ধ করার পর মিশ্রণটা একটা পাত্রে ছেঁকে ফেলুন। তারপর ঠান্ডা হতে দিন।

ভাল করে জল দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। ড্রায়ার থাকলে তা দিয়ে চুল শুকিয়ে নিন।

এবার মিশ্রণটা অল্প অল্প করে চুলের ভিতরে লাগান। খেয়াল রাখবেন আপনার চুলে যেন অন্য কোনও কেমিক্যাল না থাকে।

মিশ্রণটা প্রায় ঘণ্টা দু’য়েক মাথায় রেখে দিতে হবে। দুই ঘণ্টা পর ভাল করে চুল ধুয়ে নিন। তারপর চুল শুকাতে দিন। এই মিশ্রণ সপ্তাহে দুই থেকে তিনবার ব্যবহার করলে চুল পড়ার সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন। চুল ঘন ও শক্ত হবে। পাশাপাশি তাতে মসৃণতাও আসবে। কথায় বলে, একটি পেয়ারা নাকি ১০টি আপেলের সমান। ত্বকের মসৃণতা বজায় রাখতেও সাহায্য করে এই সহজলভ্য ফলটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 + 13 =