ডোপ টেস্টে ফেল, সুন্দরী প্রতিযোগিতা থেকে বাদ ৪০ টি উট

প্রতিবছর সৌদি আরবে আয়োজিত হয় বাদশাহ আব্দুল আজিজ উট উৎসব। চলতি মাসে শুরু হয়েছে জনপ্রিয় এই উৎসব। তবে এই উটেদের সুন্দরী প্রতিযোগিতা থেকে বাদ পড়েছে ৪০টি উট। ইনজেকশন দিয়ে দেহ সৌন্দর্য পরিববর্তন ও কৃত্রিম উপাদান দিয়ে মাংশপেশী সতেজ দেখানোর অভিযোগে উটগুলোকে বাদ দেওয়া হয়েছে। এ তথ্য জানিয়েছে সৌদি প্রেস এজেন্সি ।

প্রতিযোগিতায় সবচেয়ে সুন্দর নির্বাচিত উটের মালিককে পুরস্কার হিসেবে দেওয়া হয় ছয় কোটি ষাট লক্ষ মার্কিন ডলার। তবে উটকে আকর্ষণীয় করতে কোনও ধরনের ইনজেকশন দেওয়া, চেহারা বা দেহের অন্য কোনো অংশ কৃত্রিমভাবে পরিবর্তন সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ। এবারের প্রতিযোগিতায় কর্তৃপক্ষের নজরে আসে, কয়েক ডজন খামারি কৃত্রিমভাবে উটের ঠোঁট ও নাক প্রসারিত করেছে, পশুদের পেশী শক্তিশালী করতে হরমোন ব্যবহার করেছে, উটের মাথা ও ঠোঁট বড় করার জন্য বোটক্স দিয়ে ইনজেকশন দিয়েছে এবং রাবার ব্যান্ড দিয়ে শরীরের অংশগুলো স্ফিত করেছে ও ফিলার ব্যবহার করেছে। তাদের মুখ শিথিল করেছে। পত্রপাঠ এই কারনে ৪০ টি উটকে বাদ দিয়ে দেওয়া হয় প্রতিযোগিতা থেকে।

উটের সৌন্দর্য বর্ধনে সব ধরনের জালিয়াতি ও প্রতারণা বন্ধ করতে চায় ক্লাব। জানা গিয়েছে ভবিষ্যতে আয়োজকরা এ ধরনের অসাধু কাজের জন্য কঠোর শাস্তি আরোপ করতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

10 + thirteen =