ভাঙা মন

মেশকাতুন নাহার ##

মাগো শুনো বলি আমি পীড়ায় কাটে রাত,

কেন দিলে পরের ঘরে খেতে চারটে ভাত?

কথায় কথায় খোঁচা মারে দেয় না কভু দাম,

ঘরে বাইরে কাজ করেও তবুও নেই যে নাম।

স্বার্থপর যে মানুষগুলো নিজের লাভটা চায়,

উপোস রেখে শাস্তি দিয়ে খুবই মজা পায়।

কৌতুক করে যৌতুক খুঁজে নেই তো মুখে লাজ,

কৌশল করে উশুল তুলে বড়োই ফন্দিবাজ।

চোখের জলে বালিশ ভিজে ব্যথায় ভরা বুক,

টাকা, গয়না দিলে সবই তবু দেয় না সুখ।

জ্বলে পুড়ে অত্যাচারে ভেঙে গেছে মন,

খুশি হতো আরও দিতেম লক্ষ কোটির পণ।

সাধুবেশী বহুরূপী অন্তর তাদের ছল,

রক্তধারায় ময়লাযুক্ত ড্রেনের পচা জল।

কি করে যে বুঝাই মাগো কেমন তাদের লোভ?

ধৈর্য ধরে মেনে আছি রোধ করে যে ক্ষোভ।

এমন চিত্র ঘরে ঘরে বলার নেই যে শেষ, 

আর কতকাল চলবে এরূপ নিষ্ঠুর প্রথার রেষ?

কেমন করে জাগবে মাগো এসব কীটের বোধ?

কত যুগ পার হলে বলো যৌতুক হবে রোধ?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two + 14 =