মানুষ হব

অমিত কুমার বর ##

সমাজ নাকি নষ্ট হয়েছে!

তলিয়ে গিয়েছে দেশ!

নষ্ট আমার মানসিকতা,

নিজেকে করেছি শেষ।

কটু ভাষনে বাগ্মিত্ব বোধ

কর্ম করিনা কোনো।

পরের নিন্দা-চর্চা করি,

নিজে কি? ভাবিনি কখনো।

খুঁজে দেখিনি পৃথিবীর রুপ

মানবিকতার প্রেম।

বেনুবনে আজও বাজায়

বাঁশরী, ঘনশ্যাম।

আজও আছে পল্লীসমাজ

চিকন গ্রামের বুকে।

আজও কাঁদে বৃদ্ধমাতা

পুত্রহারার শোকে।

দুর্বৃত্তেরও মন আছে বড়

গুমরে গুমরে কাঁদে।

অচলাবস্থার ঘেরাটোপেতে

মেটে না মনের ক্ষিদে।

অনুভূতি আজ বেঁচেই মরে

হৃদয়ে করে ক্ষত।

কুরে কুরে খায় বিবেকটাকে

মনে জমা পাপ যত।

সবার দোষের হিসাব কষতে

শূন্য পেয়েছি নিজে।

খারাপ হয়েছি,ভীষন খারাপ

মিথ্যা ভালো সেজে।

সারা জীবন নিলাম অনেক

দিলাম না তো কিছুই।

বিষায়ে দিলাম সমস্ত কিছু

মানুষ হলাম মিছেই।

অনেক করেছি অভিনয়, আমি

এই ধরনীর বুকে।

বিষায়েছি বায়ু, ধ্বংস করছি

এই ধরনী মা-কে।

পাপের বোঝা বেড়েই গেছে

প্রায়শ্চিত্ত করি এবার।

সুন্দরতম পৃথিবী গড়ব,

মানুষ হব আবার।

এসো উত্তম, যুগদিশারী

দিশা দাও আজ আমায়।

প্রোথিত করো মনুষ্যত্ববোধ,

আমার ধমনী, শিরায়।

আজও আমি জেগে আছি

শুধু সাহস দাও এ বুকে।

রক্ষা করব উষ্ণ শোনিতে

আমার দেশমাতাকে।

হিংসার মূল উপড়ে ফেলব

শান্তির বীজ বুনে।

এসো অমর্ত্য, বিধাতৃদেব

দিশা দাও দিশাহীনে।

সৌহার্দ‍্যতা, ভ্রাতৃত্ববোধের

শক্ত করে হাত।

এসো বন্ধু কাজ করে যাই

সবে মিলে এক সাথ।

সুখ-শান্তি সবই আছে

শুধু নিতে হবে চিনে।

ভবির নবীকে বরন করেই

চলব আগামীদিনে।

জন্মিয়া মরে,পশুর জীবন

সেই জীবন বা কিসের?

মান ও হুঁশের মান বাড়িয়ে

ভবিষ্যৎ গড়ি দেশের।

কাপুরুষতা, দুর্বলতা

দুর করো আজ আমার।

মানুষ করো,মানুষ গড়ো

মুক্তি হোক মা সবার।

শত-জনমের দূর্লভ জনম

আর কি ফিরে পাই!?

জ্ঞান দাও,বিবেক দাও

মানুষ হতে চাই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *