রথযাত্রা

 

শঙ্কর ঘোষ, কৃষ্ণনগর, নদীয়া ##

রথ বসেছে মাঠের ‘পরে  যাচ্ছে লোকে দলে দলে,

ভীড় জমিয়েছে ভক্তগণে  রথের রশি টানবে বলে।

পথের মধ্যে ভক্তেরা লুটায়ে  করিছে প্রণাম,

কেহ আবার ভক্তি ভরে  গাহিছে দেবনাম।

রথকে ছুঁয়ে করছে প্রণাম  অনেক ভক্তগণে,

দূর থেকে জানাচ্ছে প্রণাম  আরো কত জনে।

দশ চক্রে ভগবান ভূত  হয় শুনেছি,

রথে এসে দেখে সেটা  সত্যি বুঝেছি।

জগন্নাথ বলরাম সুভদ্রা  যাচ্ছে মাসির বাড়ি,

সঙ্গে রয়েছে তাঁদের  অগণিত ভক্তের সারি।

বিশ্ব কর্মার হাতে তৈরী  রথে করে,

জগন্নাথ বলরাম সুভদ্রা যান  মাসির ঘরে।

কত সাধের খাবার রেঁধে  মাসি আছে বসি,

তাড়াতাড়ি নিয়ে চলো টানি রথের রশি।

ভক্তরা আমার অভুক্ত আছে  অনেক সময় ধরে,

একটু খানি প্রসাদ পাবে  এই আশা করে।

প্রতি বছর রথ যাত্রা  চলবে এই ভবে,

জগন্নাথের ভক্তেরা যদ্দিন পৃথিবীতে রবে।

ভক্তগণকে দেখা দিয়ে যান ফিরে ঘরে,

ভক্তগণও হয় খুশী জগন্নাথের  বরে।

2 thoughts on “রথযাত্রা

  • July 11, 2019 at 5:32 am
    Permalink

    ধন্যবাদ সম্পাদক মহাশয়কে আমার কবিতা ছাপানোর জন্য। আমার mail address
    শঙ্কর ঘোষ উত্তর কালিনগর পোঃ কৃষ্ণনগর
    জেলা নদীয়া পিন 741101

    Reply
  • July 11, 2019 at 6:32 am
    Permalink

    খুব ভালো লাগলো কবিতাটা।

    Reply

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *