শীতে ত্বক রক্ষা

শীতের শুস্ক কোমল হাওয়া বইছে দেশ জুড়ে। গরমের পরে এই কোমল হাওয়া যেন মনকে আরো উপভোগ্য করে তোলে বটে। তবে এই শীতে নিতে হবে বাড়তি সতর্কতা। বিশেষ করে শিশু ও বয়ষ্কদের ক্ষেত্রে।

আদ্রতার কারণে ফেঁটে যায় ত্বক ও ঠোঁট। এজন্য নির্জীব এবং বয়স্কতার ছাপ যেন না পড়ে সে জন্য নিতে হবে বিশেষ যত্ন। শীতকালে ব্ল্যাকহেডস, হোয়াইট হেডসের প্রকোপ বেশি থাকে। তাই ত্বকের সুরক্ষায় জেনে নিন যা যা করতে হবে।

১.  শীতকালে সবাইকে বেশি করে জল পান করতে হবে। যদিও ঠান্ডার জন্য অন্য সময়ের চেয়ে শীতে জল খাওয়ার প্রবণতা কমে যায়। শীতে জল কম খেলে শরীর শুস্ক হয়ে যায়।

২. শীতের সময় সবাই গরম জল দিয়ে স্নান করতে পছন্দ করেন, যা ত্বকের জন্য ক্ষতিকর। জল বেশি গরম না করে উষ্ণ গরম করে নিতে পারেন।  তবে স্নানের আগে ভাল করে অলিভ ওয়েল বা সরিষার তেল শরীরে মেখে নিতে পারেন।

৩. শীতের সময়েও গরমকালের মত সানস্ক্রিন মেখে রোদে বের হওয়া উত্তম।

৪. দিনে দু’বার ডিপ ক্লেনজার দিয়ে ত্বক পরিষ্কার রাখুন। গোলাপজল দিয়ে ভালভাবে মুখ পরিষ্কার করে নিয়ে ময়শ্চারাইজার লাগালে ত্বকে উজ্জ্বলতা টিকে থাকবে।

৫. মাস্ক ব্যবহার করলে ত্বক মসৃণ ও নরম থাকে। এ মাস্ক অলিভ অয়েল, কলা, দই দিয়েই তৈরি করে নিতে পারেন। মৃত কোষ থেকে রক্ষা পেতে মুসুর ডাল বাটা বা বেসন দিয়ে স্ক্রাব করতে পারেন।

৬. ঠোঁট রক্ষায় পেট্রোলিয়াম জেলি ব্যবহার করতে পারেন। যাদের লিপস্টিক না লাগালেই নয় তারা গ্লসি লিপস্টিক ব্যবহার করতে পারেন। এতে ঠোঁট নরম থাকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *