শেষ বেলা

 দীপিকা সাহা, সুভাষগ্রাম, দক্ষিন ২৪ পরগনা

 

পুব কোণে তখন সতেরো

এক ঝাঁক

কালো চিল

দিচ্ছে গন্ডীপাক…

ওই রক্তহীন ডালে

একটা ছোট্ট চড়ুইয়ের

ভাঙা বাসা

সঙ্গে মুহূর্ত নিয়ে…

জলভরা  তালের শাঁসের মতো মেঘে

ভাঙন ধরেনি বটে

তবে একরাশ আগাম ভাবনারা

এসে দাঁড়ায়

খড়কুটোর কাছে |

বেঁধেছে ঘর

জন্মেছে প্রাণ

সেকি

মৃত্যুকে বরণ করবে বলে ?

তবে কি এই সৃষ্টি ?

পশ্চিমে তখন

সিঁদুরের ছটা

আলতো পায়ে মাখামাখি,

যদি উল্টোয়

ভরা কলসির জল

নিশ্চিত তবে,

আজই

বিসর্জন ||

 

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *