সম্পাদকীয়, অক্টোবর ২০২০

শারদ সংখ্যা মানেই পুজো সংখ্যা। পুজো সংখ্যার পত্রিকার প্রতি আমাদের আকর্ষণ সেই বাল্যকাল থেকেই। এখনও পুজো এলেই পুজো বার্ষিকীর জন্য মনটা উদগ্রীব হয়ে ওঠে বৈকি। পুজোর গন্ধ এলেই মন ব্যাকুল হয় আরও অনেক কারনে। কিন্তু এবার মন ভার। আসলে পুজোর সেই গন্ধটাই যেন এবার পাচ্ছি না। করোনায় আক্রান্ত হলে নাকি কোনও কিছুর গন্ধ মেলে না। আমাদের চারপাশ এখন করোনায় মোড়া, সেই কারনেই বোধ হয় এবার পুজোর গন্ধটাও উধাও। লোকাল ট্রেন এখনও অনিশ্চিত। ব্যবসা বাণিজ্য সবেরই অস্তিত্ব সঙ্কটের মুখে। কোটি টাকার পুজো উদ্যোক্তারা আজ অসহায়। ছোট খাটো পুজোগুলি এবার অনেকেই আয়োজন করে উঠতে পারেনি। বাঙালীর সেরা উৎসবের এমন দশা এর আগে আমাদের পরিচিতরা কেউ দেখেন নি। বড় দুঃসময়।

সর্বত্র আতঙ্ক, অবিশ্বাস, অস্বস্তির বাতাবরণ। এমন আবহে আর যাই হোক উৎসব জমে না। বিশেষ করে আমাদের সেরা উৎসব তো না-ই। তাই মন খারাপের এই শারদ কালে খানিকটা হলেও সহায় পুজো বার্ষিকীগুলিই। বাড়িতে থেকে উৎসবের সময় সেগুলিই আমাদের সঙ্গী হোক। অবেক্ষণও তাদের পুজো সংখ্যাকে কলেবরে বাড়িয়ে নিয়ে এসেছে আপনাদের জন্য। পড়ে দেখবেন, মতামত দেবেন, সমালোচনা করবেন। সকলে ভাল থাকবেন।

সামনের সংখ্যায় আবার কথা হবে, খুব আশা করি ততদিনে যেন সঙ্কট মেটার একটা আলো দেখা দেয়।

পলাশ মুখোপাধ্যায়

প্রধান সম্পাদক, অবেক্ষণ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *