হিরের কপাল

দুই বছরের মধ্যে ছ’বার। হিরের কপাল বোধহয় একেই বলে। মধ্যপ্রদেশের পান্না জেলার একজন কৃষক সরকারের কাছ থেকে ইজারা নেওয়া জমিতে ফের একটি উচ্চমানের হিরে খুঁড়ে পেয়েছেন। সদ্য পাওয়া সেই হিরের ওজন ৬.৪৭ ক্যারেট। পান্না জেলার জারুয়াপুর গ্রামের কৃষক প্রকাশ মজুমদার। তিনিই এই হিরেটি খুঁজে পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন হিরের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নূতন জৈন। তিনি বলেন, 47.47 ক্যারেটের হিরে  আসন্ন নিলামে বিক্রির জন্য রাখা হবে এবং সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী দাম নির্ধারণ করা হবে।

প্রকাশবাবু জানিয়েছেন যে তিনি নিলাম থেকে প্রাপ্ত পরিমাণ খনি খনন কাজে নিযুক্ত তার চার অংশীদারদের সাথে ভাগ করবেন। পাশাপাশি তিনি বলছিলেন যে তিনি গত বছর একটি ৭.৪৪ ক্যারেট হিরে  খুঁজে পেয়েছিলেন। এছাড়া, তিনি গত দুই বছরে ২ থেকে ২.৫ ক্যারেট ওজনের চারটি মূল্যবান পাথরও খনন করেছিলেন।

কর্মকর্তারা জানান, কাঁচা হিরেটি নিলামে তোলা হবে এবং আয় সরকারী রয়্যালটি এবং কর কাটার পর কৃষককে দেওয়া হবে। পান্না জেলায় ১২ লক্ষ ক্যারেট হিরে মজুদ রয়েছে বলে অনুমান করা হয়। রাজ্য সরকার পান্না ডায়মন্ড রিজার্ভ এলাকায় স্থানীয় কৃষক এবং শ্রমিকদের হিরে খনি করার জন্য এবং জেলা খনির কর্মকর্তার কাছে জমা দেওয়ার জন্য ছোট ছোট জমি ইজারা দেয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

eleven + 3 =