সাফ রাখুন বিছানাও

পুজোর আগে শুধু কেনাকাটার পাশাপাশি ঘরদোর পরিষ্কার করাও একটা বড় কাজ। অনেকেই এই কাজ করে ফেলেন কিছুদিন আগে থাকতেই। ঘরের প্রতিটি কোণ, আলমারি, টেবিল, চেয়ার থেকে বইয়ের তাক, সবই তো পরিষ্কার করেছেন। কিন্তু বিছানার গদি পরিষ্কার করেছেন কি? যদি না করে থাকেন তাহলে অবশ্যই করুন। কারণ, গদির খাঁজে ময়লা জমতে সময় লাগে না। ভারী গদি পরিষ্কার করা বড্ড কঠিন। একথা মনে হতেই পারে। কিন্তু এর সহজ উপায়ও রয়েছে। এ ক্ষেত্রে অবশ্য ভ্যাকুয়াম ক্লিনার থাকলেম কাজটা সহজ হয়।

সবার প্রথমে যে বেডশিট ও বালিশের কভারগুলো রয়েছে তা খুলে আলাদা করে কেচে নিন। কাচার আগে গরম সার্ফের জলে সেগুলি বেশি কিছুটা সময় ভিজিয়ে রাখবেন। এতে ভাল পরিষ্কার হবে।এবার ভ্যাকিউম ক্লিনার নিয়ে গদির সমস্ত অংশের ধুলো সাফ করে দিন। এমন ভ্যাকিউম ক্লিনার ব্যবহার করবেন যাতে গদির সমস্ত কোণের ধুলো ময়লা সাফ হয়ে যায়।

অনেক সময় দেখা যায়, গদির উপরে নানা দাগ লেগে থাকে। চট করে তাতে সার্ফের জল বা সাবান দিয়ে পরিষ্কার করতে যাবেন না। স্টেন রিমুভার ব্যবহার করতে পারেন। জৈবিক দাগের জন্য এনজাইম ক্লিনার ব্যবহার করবেন। অনেক বাড়িতেই বিছানার গদি ছাদে নিয়ে গিয়ে রোদের রাখার রেওয়াজ রয়েছে। সেই পরিস্থিতি যদি আপনার না থাকে তাহলে গদির উপর বেকিং সোডা ছড়িয়ে দিন। কয়েক ঘণ্টা এই অবস্থায় রেখা দিন। সারা রাত রেখে দিতে পারলে আরও ভাল। ঘরে জানলা থাকলে খুলে দিন। তা দিয়ে যেটুকু রোদ আসবে, তাতেই ক্ষতিকারক ব্যাকটেরিয়ার নাশ হবে। তারপর ভাল করে ভ্যাকিউম ক্লিনার দিয়ে গদি পরিষ্কার করে দিন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

17 + 10 =